তফসিল ঘোষণার পর আন্দোলন কর্মসূচি গণতন্ত্রের পরিপন্থী-ওবায়দুল

19

রংপুর বার্তা.কম;আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন,তফসিল ঘোষণার পর বিএনপি আন্দোলনের কর্মসূচি দেবে এটা গণতন্ত্রের পরিপন্থী।তাদের আন্দোলনে জনগণ সায় দেবে না।
পাবলিক এখন ইলেকশন মুডে আছে।

শুক্রবার সকালে আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনার রাজনৈতিক কার্যালয়ে মনোনয়ন ফরম বিতরণের উদ্বোধন শেষে সাংবাদিকদের তিনি একথা বলেন।

ওবায়দুল কাদের বলেন, নির্বাচনের আইন মেনেই তফসিল ঘোষণা করেছে নির্বাচন কমিশন। নির্বাচন কমিশনের অধীনের সব বিষয়।তফসিল ঘোষণার পরপরেই আমরা মনোনয়ন ফরম বিতরণের কাজ শুরু করেছি। তফসিল ঘোষণার পর থেকে সারা দেশে নির্বাচনমুখর পরিবেশের সৃষ্টি হয়েছে। নির্বাচনের বাইরে আন্দোলনের যত ডাকই দিক না কেন জনগণ তাতে সাড়া দেবে না।

মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ নিয়ে বিশৃঙ্খল পরিবেশের বিষয়টিকে ওবায়দুল কাদের সাংবাদিকদের স্বাভাবিকভাবে দেখার অনুরোধ জানান

তিনি বলেন, এবার মনোনয়ন ফরম কেনায় বিপুল উৎসাহ উদ্দীপনা আমরা লক্ষ্য করছি। আমরা ডিসিপ্লিন করার চেষ্টা করি কিন্তু আজকে ডিসিপ্লিন রাখার মতো অবস্থা নেই। সংলাপ নিয়ে ওবায়দুল কাদের বলেন, জাতীয় ঐক্যফ্রন্টের সঙ্গে আওয়ামী লীগের সংলাপের ফলাফল শূন্য এটা বলা যাবে না। তারা (ঐক্যফ্রন্ট) যে লিস্ট দিয়েছে তা নিয়ে কাজ শুরু করা হয়েছে।

সেতুমন্ত্রী বলেন, প্রধানমন্ত্রীর জন্য মনোনয়ন ফরম সংগ্রহের মধ্য দিয়ে মনোনয়ন ফরম বিক্রি শুরু হয়েছে। তার পক্ষে ২টি ফরম সংগ্রহ করা হয়েছে। তারপর জাতীয় সংসদের স্পিকারের জন্য মনোনয়ন সংগ্রহ করেছেন হুইপ আতিকুল রহমান। মনোনয়ন ফরম বিক্রির মধ্য দিয়ে নির্বাচনের যাত্রা শুরু হয়েছে।

ওবায়দুল কাদের বলেন, মনোনয়ন প্রত্যাশীদের ধানমণ্ডির রাজনৈতিক কার্যালয়ের ৮ বুথ থেকে মনোনয়ন ফরম সংগ্রহ করতে হবে। আওয়ামী লীগের মনোনয়ন ফরম কেনার আগ্রহ প্রচণ্ড। আগামী ১১ নভেম্বর রোববার বিকাল সাড়ে ৩টায় আওয়ামী লীগ সভাপতি প্রধানমন্ত্রীর সভাপতিত্বে সংসদীয় মনোনয়ন বোর্ডের সভা অনুষ্ঠিত হবে। সভায় মনোনয়ন ফরম বিক্রির শেষ তারিখ ঠিক করা হবে।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন, আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মাহাবুব উল আলম হানিফ, জাহাঙ্গীর কবির নানক, আবদুর রহমান, সাংগঠনিক সম্পাদক আ ফ ম বাহাউদ্দিন নাছিম, আহমদ হোসেন, খালিদ মাহমুদ চৌধুরী, এনামুল হক শামীম, মহিবুল হাসান চৌধুরী নওফেল, দফতর সম্পাদক আবদুস সোবহান গোলাপ প্রমুখ।